Notice

ফেইসবুকে পোস্ট করে ৩৭ বছরের সাজা!

কোনো কারাবন্দী ফেইসবুক ব্যবহার করলেই শাস্তি হিসেবে তাদের বন্দী রাখা হয় ‘সলিটারি কনফাইনমেন্ট’ বা নিসঙ্গ সেলে।

জেলখানায় বন্দি অবস্থায় সাজাপ্রাপ্ত আসামিরা সেখানে কোনো গুরুতর অপরাধ করলে সাজা হিসেবে তাদের ‘সলিটারি কনফাইনমেন্ট’ বা নিসঙ্গ সেলে আটক রাখা হয়। সলিটারি কনফাইনমেন্টে থাকা অবস্থায় জেলখানার কর্মকর্তা ছাড়া আর কারও সঙ্গে কোনো ধরনের যোগাযোগের সুযোগ থাকে না ওই বন্দীর।

সিএনএন জানিয়েছে, সর্বশেষ টাইহাম হেনরি নামের এক কারাবন্দিকে ৩৮ বার ফেইবুকে পোস্ট করার অপরাধে ৩৭ বছর সলিটারি কনফাইনমেন্টে বন্দি থাকার সাজা দিয়েছে ডিপার্টমেন্ট অফ কারেকশনস কর্তৃপক্ষ।

গত তিন বছরে সোশাল মিডিয়ায় পোস্ট করাকে জেলখানার নিয়মের পরিপন্থি বিবেচনা করে ৩শ’ ৯৭ জন কারাবন্দির বিরুদ্ধে ৪৩২টি অভিযোগ আনা হয়েছে বলে জানিয়েছে সিএনএন।

সোশাল মিডিয়ায় পোস্ট করলেই নিসঙ্গ সেলে আটকে রাখার এই সাজা ‘লঘু পাপে গুরুদণ্ড’ হয়ে যাচ্ছে বলে স্বীকার করে নিয়েছেন সাউথ ক্যারোলিনার ডিপার্টমেন্ট অফ কারেকশনস প্রধান ব্রায়ান পি স্টারলিং। শাস্তির পরমিাণ কমানো হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

সোশাল মিডিয়া ব্যবহার করে কারাবন্দী অপরাধীদের নতুন করে অপরাধ সংগঠন ঠেকাতেই এই শাস্তি দেওয়া হত বলে ব্যাখ্যা দেন তিনি।

Print
error: Content is protected !!